বাংলাদেশে বসে নিজেরাই ইন্ডিয়ার ট্রেনের টিকিট কেটে ফেলুন কোনরুপ দালাল বা এজেন্সির বা Apps এর সাহায্য ছাড়াই

অহেতুক ঝামেলা ছাড়াই বাংলাদেশে বসে নিজেরাই ইন্ডিয়ার ট্রেনের টিকিট কেটে ফেলুন কোনরুপ দালাল বা এজেন্সির বা Apps এর সাহায্য ছাড়াই  .
২০ দিনের এক ভয়াবহ  প্লান নিয়ে ঢাকা > কলকাতা > আগ্রা > দিল্লী > মানালী > ডালহউসি ( কাশ্মীর বিদেশীদের জন্য বন্ধ তাই কাশ্মিরের খুব কাছের এই জায়গা নির্বাচন ) > আম্রিতাসর ( পাঞ্জাব ) > কলকাতা এর প্লান করা । ফেব্রুয়ারিতে যাচ্ছি । শুরু থেকে চিন্তায় আছি । আমাদের গ্রুপ মেম্বার ৪ জন থেকে কমে শেষে তিনে গিয়ে ঠেকেছে । এটা আমাদের প্রথম ইন্ডিয়া ভ্রমণ । তারুপর আমরা প্রথম দিন কলকাতায় থাকব না । সবার শেষে কলকাতা ঘুরা ঘুরি । ট্রেনের টিকিট পাওয়া নিয়ে অনেক টেনশনে ছিলাম । দালাল , এজেন্সি এসব থেকে সব সময় দূরে থাকার চেষ্টা করেছি । অনেক খুজা খুজির পর অবশেষে আল্লাহর রহমতে পেয়ে গেলাম সুযোগ 
.
এবার শুনুন কিভাবে ইন্ডিয়ার যেকোন ট্রেনের টিকিট দালাল ছাড়া বাংলাদেশ থেকেই কিনবেন কোন রুপ Extra চার্জ ছাড়াই ।
.
STEP 1:
======
প্রথমে আপনাকে www.irctc.co.in একটা আকাউন্ট খুলতে হবে । এখানে অ্যাকাউন্ট করাটা ঝামেলার আবার বুদ্ধি থাকলে সোজা । এখানে অ্যাকাউন্ট করতে হলে একটা Indian নাম্বার লাগবে । Sign Up করার সময় জাতীয়তা বাংলাদেশ দিবেন । আর Residential Address এর ওখানে *Pin বলতে আপনার এলাকার কোড , যেমন ধানমণ্ডি ১২০৯ বা লালমনিরহাট ৫৫০০ এটা । যাদের Indian নাম্বার নেই তারা 9999999999 দিতে চেষ্টা করে দেখতে পারেন। । এক ছোট ভাই বর্তমানে India তে অবস্থান করার কারনে এই ঝামেলা খুব সহজে পার পেয়ে গেলাম ।
.
STEP ২:
======
এর পর নিজের অ্যাকাউন্ট এ লগ ইন করুন । ফোন আর Email ভেরিফাই করুন । আর সব শেষে care@irctc.co.in এর ঠিকানায় আপনার Passport এর একটা স্ক্যান বা ছবি পাঠায় দিন আপনার User Name সহ ( না দিলেও কিছু হবে না , বাট চেষ্টা করবেন দিতে ) । এর পর স্বাভাবিক নিয়মেই টিকিট কাটুন ( দেখলেই বুঝে যাবেন । সোজা প্রসেস ) । এখানে একটা জিনিস মাথায় রাখবেন টিকিট কেনার সময় অবশ্যই জাতীয়তা বাংলাদেশী দিবেন । এর পর পাসপোর্ট নাম্বার দিবেন আর অবশ্যই E-Ticket
.
STEP 3:
======
ট্রেন ও টিকিট নিশ্চিত করার পর আপনি যখন পেমেন্ট অপশনে যাবেন । তখন আপনার ট্রাভেল কার্ড বা ইন্ডিয়ান কোন ব্যাংক বা American Express বা International Card ( Master বা ভিসা ) দিয়ে পেমেন্ট দিতে হবে । আমার International Master Card আছে সেটা দিয়েই পেমেন্ট করেছি । এখানে টিকিট আপনাকে PDF আকারে দিবে ।
.
যাত্রার সময় টিকিট প্রিন্ট + নিজের পাসপোর্ট এর ফটোকপি একসাথে করে টিটিকে দেখাতে হবে ।
.
আমাদের টিকিট করা আছে শিয়ালদাহ থেকে আগ্রা ফোরট AJMER EXPRESS আর আম্রিতাসর থেকে হাওড়া স্টেশন পর্যন্ত HWH MAIL ।
.
ভাড়াঃ
====
শিয়ালদাহ থেকে আগ্রা ফোরট = ৫৬৫ রুপি বা ৮.৯৪ ডলার । SL
আম্রিতাসর থেকে হাওড়া স্টেশন = ৬৯৫ রুপি বা ১০.৯৯ ডলার । SL
.
সাবধানতাঃ
=========
১. IRCTC সরকারি Website সো কোন ২ নাম্বারি নাই
২. এক অ্যাকাউন্ট দিয়ে এক সাথে সর্বাধিক ৬ জনের টিকিট কাটতে পারেন
৩. ভ্রমণের সময় অবশ্যই টিকিটের কপির সাথে পাসপোর্ট এর ফটোকপি দিবেন । না হলে জরিমানা নিশ্চিত
৪. অবশ্যই ভ্রমনের ১০ দিন আগে টিকিট বুক করবেন । না হলে টিকিট পাবার সম্ভাবনা কম ।
৫. যার অ্যাকাউন্ট তাকে অবশ্যই ভ্রমন করতে হবে । সো নিজের অ্যাকাউন্ট করে অপরিচিত কাউকে বা ব্যাবসা শুরু করে দিবেন সে রকমের কোন সুযোগ নেই ।
.
IRCTC কিছু সাধারন সুবিধাঃ
=====================
IRCTC সম্পূর্ণ ভাবে ইন্ডিয়ান সরকার নিয়ন্ত্রিত । এখান থেকে শুধু যে ট্রেন টিকিট কাটতে পারবেন তা কিন্তু না । এখানে রয়েছে সরকার নিয়ন্ত্রিত বাস , ক্যাব ও বিমানের টিকিট কাটার সুবিধা ।

.
কিছু সাধারন জিজ্ঞাসাঃ
=================
১. আমার ইন্ডিয়ান মোবাইল নাম্বার নেই আমি কি ভাবে Account করব ?
উত্তরঃ ইন্ডিয়া যাবার পরপরেই একটা Indian সিম কিনে এখানে অ্যাকাউন্ট করে ফেলুন । আর বাকি ভ্রমণটা নিশ্চিন্তে থাকুন
২. আমার ইন্টারন্যাশনাল , ট্র্যাভেল , ভিসা বা মাস্টারকার্ড নেই । আমি কি করব ?
উত্তরঃ পরিচিত কারো সাহায্য নিন।
.
আমাদের Adventure আর Original India কেমন সেটা দেখার অদ্ভুত শখ জেগেছে । তাই কম দামের SL ( Sleeper ) এ টিকিট কেটেছি , সাথে বোনাস হিসেবে বার্থ ও আছে । ভালো থাকবেন সবাই 



Comments

Popular posts from this blog

How Entrepreneurship Lead me to Workaholism

#এইসব দিনগুলি (শেষ পর্ব)

Online Job | Cover Letter